0

নারিকেল তেলের ব্যবহারের কথা উঠলেই শুধু মনে হয় চুল ছাড়া এই তেলের ব্যবহার আর নেই। তবে দিন দিন অবশ্য গবেষণায় উঠে আসছে নারিকেল তেলের বিবিধ ব্যবহার। যা শরীর ত্বক সবজায়গাতেই বেশ উপকার দেয়। অনেক সমস্যার সমাধান মেলে এই নারিকেল তেলের ব্যবহারে। অনেকের হয়তো অনেক বিষয় জানা নেই। যাদের বিষয়গুলো জানা নেই তারা জেনে নিন।

এ্যার্নাজি বৃদ্ধিতে: খাবার উপযুক্ত নারিকেল তেল প্রতিদিন খেলে তা দেহের এনার্জি বৃদ্ধি করে। এছাড়া নারিকেল তেলের থাকা অ্যাসিড মস্তিষ্ক রিল্যাক্স করতে সাহায্য করে। তবে রান্নায় বিশুদ্ধ নারকেল তেল ব্যবহার করা উচিত।

ছোটখাটো জ্বালাপোড়া: হঠাৎ করে হাত পুড়ে গেলে সেখানে কিছু পরিমাণ নারিকেল তেল ব্যবহার করুন। দেখবেন জ্বালাপোড়া অনেকটা কমে গেছে। কিছুক্ষণ পর পর পুড়ে যাওয়া স্থানে নারকেল তেল ব্যবহার করুন।

ত্বক ময়েশ্চারাইজ করতে: ত্বক ময়েশ্চারাইজ করতে নারিকেল ব্যবহার করা হয়। লোশন ব্যবহার না করে ত্বকে নারিকেল তেল ব্যবহার করতে পারেন। এটি প্রাকৃতিক ময়েশ্চারাইজার হিসেবে কাজ করে। এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট উপাদান ত্বকের জ্বালাপোড়া এবং রিংকেল দূর করে দেয়।

হজমের সমস্যা দূর করতে: নারিকেল তেলে কিছু উপকারি ফ্যাট রয়েছে। এর অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল উপাদান পাকস্থলির ইনফেকশন দূর করে। ফলে হজমের সমস্যা দূর হয়।

অনিদ্রা দূর করতে: ঘুমের সমস্যা দূর করে নারিকেল তেল। প্রতিদিন তিন টেবিল চামচ বিশুদ্ধ নারিকেল পান করুন। এটি শরীরের অভ্যন্তরীণ ক্রিয়া ঠিক রাখে। যা আপনাকে ভালো ঘুমে সহায়তা করে।

ব্যথা প্রশমিত করতে: জয়েন্টের ব্যথা কিংবা হাঁটু ব্যথাতে কুসুম গরম নারিকেল তেল ম্যাসাজ করুন। এটি ব্যথা কমাতে সাহায্য করবে।

বলিরেখা দূর করতে: বলিরেখা এবং রিংকেল প্রতিরোধ করতে নারিকেলের জুড়ি নেই। দিনে দুইবার ত্বকে নারিকেল তেল ম্যাসাজ করে লাগান। এটি নিয়মিত করুন। এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট উপাদান ত্বকে বলিরেখা পড়া রোধ করে।

ঘামের দুর্গন্ধ দূর করতে: ঘামের দুর্গন্ধ দূর করতে বগলে কিছু পরিমাণ নারিকেল তেল ম্যাসাজ করে লাগান। নারকেল তেলে থাকা উপাদান ঘাম শুষে নেয়, যা দুর্গন্ধ হওয়া রোধ করে।

সূত্র: স্টাইলক্রেজ

Leave a Comment

Your email address will not be published.

0

TOP

X
Change